অর্থ-বাণিজ্য

৫ দিনে রেমিট্যান্স এলো ৫ হাজার কোটি টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক : পবিত্র ঈদুল আজহা সামনে রেখে নতুন অর্থবছরের (২০২২-২৩) প্রথম ৫ দিনেই প্রবাসীরা ৫৩ কোটি ৬০ লাখ ডলার দেশে পাঠিয়েছেন। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ ৫ হাজার কোটি টাকারও বেশি।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের হালনাগাদ তথ্যমতে, কোরবানির ঈদের আগে প্রবাসীরা তাদের উপার্জন দুহাত ভরে পাঠাচ্ছেন। চলতি জুলাই মাসের প্রথম ৫দিনে ৫৩ কোটি ৬০ লাখ ডলার রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন প্রবাসীরা। ঈদের আগে দেশে থাকা স্বজনরা যেন কোরবানির পশু কিনতে পারেন, সেজন্য প্রতিবছর ঈদের আগেই রেমিট্যান্সে জোয়ার আসে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন কর্মকর্তা জানান, রেমিট্যান্স আসার যে গতি, তা খুবই ইতিবাচক। সাধারণত প্রতি ঈদের আগেই রেমিট্যান্স বাড়ে। তবে এবারের রেমিট্যান্স আসার হার একটু বেশি। ঈদের দুদিন বাকি। এ দুদিনে আরও বেশি রেমিট্যান্স আসবে বলে আশা করছি।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য মতে, চলতি জুলাই মাসের প্রথম ৫ দিনে সবচেয়ে বেশি রেমিট্যান্স বা প্রবাসী আয় এসেছে বেসরকারি ইসলামী ব্যাংকের মাধ্যমে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, মে মাসে প্রবাসীদের পাঠানো রেমিট্যান্সের পরিমাণ ছিলো ১৮৮ কোটি ৫৪ লাখ ডলার। অথচ জুন মাসে রেমিট্যান্স এসেছে ১৮৩ কোটি ৭২ লাখ ডলার। অর্থাৎ মে মাসের তুলনায় জুনে রেমিট্যান্স কমেছে ৫ কোটি ডলার।

২০২০-২১ অর্থবছরের পুরো সময়ে রেমিট্যান্সের উল্লম্ফন ছিল। ওই অর্থবছরে অতীতের সব রেকর্ড ছাড়িয়ে ২ হাজার ৪৭৮ কোটি ডলার রেমিট্যান্স পাঠিয়েছিলেন প্রবাসীরা, যা তার আগের অর্থবছরের চেয়ে ৩৬. ১০ শতাংশ বেশি। গত অর্থবছরের ১২ মাসের মধ্যে সাত মাসেই ২০০ কোটি ডলারের বেশি রেমিট্যান্স এসেছে দেশে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, চলতি অর্থবছরে রেমিট্যান্স আরও বাড়বে। গত ছয়মাসে আরও ১০ লাখের মতো শ্রমিক বিদেশে গেছেন। তাদের পাঠানো আয়ও রেমিট্যান্সের খাতে যোগ হবে।

আরো খবর »

ভুটানের ১৬ পণ্যে শুল্কমুক্ত প্রবেশাধিকার দিল বাংলাদেশ

aysha akter

হয়রানিমুক্ত ব্যবসার পরিবেশ চান প্লাস্টিক খাতের উদ্যোক্তারা

aysha akter

যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশের পোশাক রপ্তানি বেড়েছে ৬০ শতাংশ

aysha akter