29 C
Dhaka
মার্চ ৮, ২০২১
Corporate Sangbad | Online Bangla NewsPaper BD
আইন-আদালত

সেদিন কি ঘটেছিলো গাজীপুরের “সারা রিসোর্টে”

গাজীপুর প্রতিনিধি : গাজীপুরের সারা রিসোর্টে বেড়াতে গিয়ে কেন লাশ হয়ে বাড়ি ফিরলেন দেশের শীর্ষস্থানীয় বিজ্ঞাপনী সেবা দানকারী ব্যবসায়িক গ্রুপের তিন কর্মী। সবুজে ঘেরা রিসোর্টের বিলাসী রুম, সুট ও কটেজে অবকাশযাপন। সাথে ছিলো লাঞ্চ, ডিনার, ব্রেকফাস্ট, সুইমিং পুলসহ নিজের মন আনন্দিত করতে প্রাকৃতিক পরিবেশে আরো অনেক কিছু। এছাড়া রয়েছে দক্ষ সেবা সহকারী। যাঁরা অতিথিকে যেকোনো মুহূর্তেই সেবা দিতে প্রস্তুত।

তবে কেনই বা গত ২৮ জানুয়ারি ঢাকার ফোরথট পিআর এশিয়া টেক্সফার্ম থেকে ৪০ জন লোক গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার পাবুর চালা এলাকায় সারাহ্ রিসোর্টে বনভোজনে গিয়ে তিনজন মৃত্যু বরন করেন। হতে পারে উচ্চবিলাসি ভাব নেয়া অথবা অতি উৎসাহী হয়ে নিজেদেরকে বেশি আনন্দিত করার জন্যে নেশাজাতীয় দ্রব্য সেবন করা হয়।

বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, সারাহ্ রিসোর্টে ফোরথট পিআর এশিয়া টেক্সফার্মের কর্মীরা অবস্থানকালে বাইর থেকে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের দিয়ে ভেজাল মদ ও বিভিন্ন ধরনের খাদ্যদ্রব্য সংগ্রহ করেন। পরে তারা ওই খাবার ও মদ সেবন করে আনন্দ উল্লাসে মত্ত হন। রিসোর্টে অবস্থানকালে কর্তৃপক্ষ তাদের সেবা প্রদান করেন। অবকাশযাপন শেষে ৩০ জানুয়ারি দুপুরে ফরথট পিআর এশিয়া টেক্স ফার্মের লন্ডন এক্সপ্রেস বাসযোগে রিসোর্ট থেকে সবাই একত্রে বের হয়ে যায়। পথিমধ্যে তাদের মধ্যে ১২/১৩ জন মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পরেন। পরে তাদেরকে ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসার জন্যে পাঠানো হয়। তাদের মধ্যে রোববার (৩১ জানুয়ারি) সকালে শিহাব জহির রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে এবং কায়সার আহমেদ বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে মারা যান। আর সোমবার (০১ ফেব্রুয়ারি) সকালে উত্তরার ক্রিসেন্ট হাসপাতালে শরীফ জামান নামে আরেকজনের মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় ১ ফেব্রুয়ারি রাতে গাজীপুরের শ্রীপুর থানার এসআই নয়ন ভূইয়া বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছেন। তবে মামলায় কেবল শিহাব জহির নামে একজনের মৃত্যু এবং ১২/১৩ জন অসুস্থ হওয়ার কথা বলা হয়েছে।

এজাহারে বলা হয়, সারাহ রিসোর্টে অজ্ঞাতনামা আসামিদের সহায়তায় অবহেলাজনিতভাবে মদপানে সহায়তা করা হয়। এবং বনভোজনে আসা লোকজনের কয়েকজন ঢাকায় ফিরে গিয়ে অসুস্থ হয়ে মৃত্যু হয়। মামলার বাদী এসআই নয়ন ভূইয়া এ বিষয়ে কোন কথা বলতে রাজি হননি।

শ্রীপুর থানার ওসি খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, ২৮ জানুয়ারি ঢাকার ফোরথট পিআর এশিয়া টেক্সফার্ম থেকে অনুষ্কা গাজীর নেতৃত্বে ৪০ জন লোক গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার পাবুর চালা এলাকায় সারাহ্ রিসোর্টে বনভোজনে যান। পরে সারাহ্ রিসোর্টে অবস্থানকালে বাইরে থেকে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা অবহেলাজনিতভাবে তাদের ভেজাল মদ ও বিভিন্ন ধরনের খাদ্যদ্রব্য সংগ্রহ করে। পরে তারা ওই খাবার ও মদ সেবন করে আনন্দ উল্লাস করে।

এ সময় রিসোর্ট কর্তৃপক্ষ তাদের সেবা প্রদান করেন। পরে ৩০ জানুয়ারি দুপুরে বনভোজন শেষে তাদের নিজস্ব বাসযোগে রিসোর্ট থেকে সবাই একত্রে বের হয়ে যায়। পথিমধ্যে তাদের মধ্যে ১২/১৩ জন মারত্মক অসুস্থ হয়ে পড়লে তাদের ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়। ভেজাল মদ সরবরাহে জড়িতদের খোঁজে অভিযান চলছে। তদন্ত ও জড়িতদের খুঁজে গ্রেফতার অভিযান চলছে।

গাজীপুরে অভিনয় শিল্পীকে পালাক্রমে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৫


আরো খবর »

চট্টগ্রামে প্রবাসী তোতা হত্যায় ৮ জনের মৃত্যুদণ্ড

উজ্জ্বল

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ বাড়ছে

উজ্জ্বল

চট্টগ্রাম কারাগারে নিখোঁজ হাজতি, জেলার-ডেপুটি জেলার প্রত্যাহার

উজ্জ্বল